রাব্বির হামহুমা কামা রাব্বায়ানি সাগিরা

“রাব্বির হামহুমা কামা রাব্বায়ানি সাগিরা” (Rabbir Hamhuma Kama Rabbayani Sagheera) এই আয়াতটি পিতামাতার মৃত্যুর পরে নয় বরং তাদের জীবিত অবস্থায় সন্তানের জন্য অধিক পালনীয়।

বনি ইসরাইল সুরার এই ২৪ তম আয়াতটি মূলত পিতা মাতা জীবিত থাকাকালীন অবস্থায় সন্তানের জন্য অবশ্য পালনীয় করা হয়েছে তাদের মৃত্যুর পরে নয়। যেখানে পরিস্কার বলা হয়েছে তুমি তাদের প্রতি নত নম্র ব্যবহার করবে। যেমন তারা তোমার ছোট অবস্থায় তোমার প্রতি করেছিল।

পিতামাতার জন্য সন্তানের দোয়া

বনি ইসরাইলের ২৩ এবং ২৪ তম আয়াত পাশাপাশি পড়লে বিষয়টি পরিস্কার হয়ে যাবে।
আল্লাহ নির্দেশ করেছেন

وَقَضَىٰ رَبُّكَ أَلَّا تَعْبُدُوا إِلَّا إِيَّاهُ وَبِالْوَالِدَيْنِ إِحْسَانًا ۚ إِمَّا يَبْلُغَنَّ عِنْدَكَ الْكِبَرَ أَحَدُهُمَا أَوْ كِلَاهُمَا فَلَا تَقُلْ لَهُمَا أُفٍّ وَلَا تَنْهَرْهُمَا وَقُلْ لَهُمَا قَوْلًا كَرِيمًا

আয়াত-২৩ অর্থ :

তোমার পালনকর্তা আদেশ করেছেন যে, তাঁকে ছাড়া অন্য কারও এবাদত করো না এবং পিতা-মাতার সাথে সদ্ব-ব্যবহার কর। তাদের মধ্যে কেউ অথবা উভয়েই যদি তোমার জীবদ্দশায় বার্ধক্যে উপনীত হয়; তবে তাদেরকে ‘উহ’ শব্দটিও বলো না এবং তাদেরকে ধমক দিও না এবং বল তাদেরকে শিষ্ঠাচারপূর্ণ কথা।

وَاخْفِضْ لَهُمَا جَنَاحَ الذُّلِّ مِنَ الرَّحْمَةِ وَقُلْ رَبِّ ارْحَمْهُمَا كَمَا رَبَّيَانِي صَغِيرًا

আয়াত-২৪ অর্থ

তাদের সামনে ভালবাসার সাথে, নম্রভাবে মাথা নত করে দাও এবং বলঃ হে পালনকর্তা, তাদের উভয়ের প্রতি রহম কর, যেমন তারা আমাকে শৈশবকালে লালন-পালন করেছেন।

সুতরাং আয়াতটি পিতামাতা জীবিত অবস্থায় পিতামাতার জন্য সন্তানের দোয়া হিসাবে তিনি নির্দেশ করেছেন। জীবিত পিতামাতার প্রতি এটির অধিক ব্যবহার তাই কাম্য।

এই আয়াত উচ্চারণ মানে এই নয় পিতা মাতা ইন্তেকাল করেছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *